• শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০২:৫২ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
গৃহহীন অসহায় মমতাজকে টিম হাসিমুখের ঘর উপহার! বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙার প্রতিবাদে ঢাকাসহ সারাদেশে যুবলীগের বিক্ষোভ দেশজুড়ে দৃষ্টিনন্দন ইসলামি ভাস্কর্য রামগঞ্জে দল্টা বাঙ্গালী ব্লাড ডোনার্স ক্লাবের উদ্যোগে ফ্রি ব্লাড গ্রুপিং ক্যাম্পিং নকল আওয়ামী লীগের ভিড়ে হারিয়ে যাচ্ছে আসল আওয়ামীলী লীগ’ বসুরহাট পৌরসভার জনকল্যাণে নিবেদিতপ্রাণ আবদুল কাদের মির্জা ‘তুরস্কের আঙ্কারায় বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণ করা হবে’ যুবলীগ সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে ফেসবুকে অপপ্রচার থানায় জিডি ভাস্কর্য বিরোধীতার আগে শিশু বলাৎকার বন্ধ করুন: ডা. জাফরুল্লাহ কোম্পানীগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি হাসান ইমাম রাসেল’র জন্মদিন উদযাপন

করোনার বিরুদ্ধে লড়তে নতুন ওষুধের ট্রায়াল শুরু করল জাপান

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১ এপ্রিল, ২০২০

অ্যাভিগান সাধারণত ঠাণ্ডা লাগা বা সর্দি সারাতে ওষুধ হিসাবে ব্যবহার করা হয়। কিন্তু এবার সেই অ্যাভিগান ওষুধ করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ের অস্ত্র হিসাবে ব্যবহার করার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে জাপান। চীনে করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসায় অ্যাভিগান ব্যবহার করে সাফল্য পেয়েছিলেন চিকিৎসকরা। যে সব আক্রান্তদের অ্যাভিগান দেওয়া হয়েছিল তারা অন্যদের থেকে দ্রুত সেরে উঠেছিলেন।

করোনার বিরুদ্ধে অ্যাভিগান যার জেনেরিক নাম ফ্যাভিপিরাভির ব্যবহারের ট্রায়াল শুরু করলো এবার জাপানের সংস্থা ফুজি ফিল্ম।

জুন মাসের শেষের দিকে ১০০ জন আক্রান্তের উপর পরীক্ষামূলকভাবে অ্যাভিগান প্রয়োগ করা হবে বলে জানিয়েছেন সংস্থার কর্ণধার। ইতিমধ্যে এই ওষুধ প্রাণীদের উপর পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করা হয়েছে।

প্রাণীদের শরীরে পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছিল। ফলে অন্তঃসত্ত্বা নারীদের উপর এই ওষুধ ব্যবহার করা হবে না বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। নিউমোনিয়ায় আক্রান্তদের সারিয়ে তুলতে অ্যাভিগান ম্যাজিকের মতো কাজ করেছে বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে গত সপ্তাহে জানিয়েছিলেন, তার দেশ ভাইরাসের মোকাবেলায় অ্যাভিগানের অনুমোদন প্রক্রিয়া শুরু করবে। এরপরই এই ওষুধের ট্রায়াল শুরু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সংস্থাটি।

একদল চিকিৎসক জানিয়েছেন, অ্যাভিগান প্রয়োগে অসুস্থ ব্যক্তিকে দ্রুত সারিয়ে তোলা যায়। জাপানের কাছে এই ওষুধ নিয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছে বেশ কিছু দেশ। করোনার টিকা আবিষ্কারে এখনও এক থেকে দেড় বছর সময় লাগতে পারে বলে জানিয়েছেন বহু দেশের গবেষকরা। ফলে এই সময়টাতে প্রচুর মানুষ মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়বে করোনার প্রকোপ থেকে কীভাবে বাঁচা যায় তার রাস্তা খুঁজতে দিনরাত এক করে কাজ করছেন চিকিৎসকরা। 

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

http://digitalbangladesh.news/