• শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:৫৬ অপরাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
সালাউদ্দিন কে সরাতে সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড়! জনতার রাজনীতির এক যোদ্ধার নাম সম্রাট সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতা জুয়েলকে যুক্তরাষ্ট্রস্থ কোম্পানীগঞ্জবাসীর সংবর্ধনা! ১৫ আগস্ট হত্যাকাণ্ড একটি জাতিগোষ্ঠী ও জাতিসত্তাকে গণহত্যার সামিল রামগঞ্জে ছাত্রলীগের উদ্যোগে বৃক্ষরোপন কর্মসূচি পালিত মুজিববর্ষ উপলক্ষে নোয়াখালীতে ছাত্রলীগের উদ্যোগ বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি ২১ শে আগস্ট ও বিএনপির ঐতিহাসিক বিচারহীনতার চরিত্র কোম্পানীগঞ্জসহ আরও ১০টি অর্থনৈতিক অঞ্চলের স্থান চূড়ান্ত ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা: কী ঘটেছিল সেই দিন বঙ্গবন্ধু বিশ্বের মুক্তিকামী সকল মানুষের রাজনৈতিক আদর্শ

নোয়াখালীতে এসএসসি ও এইচএসসি ০৪/০৬ ব্যাচের পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত

  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

হামিদ রনি : “বন্ধুত্ব আজীবন” এমন শ্লোগানে আনন্দ আর নানান রকম পিঠা-পায়েশের উৎসব আয়োজনের মধ্য দিয়ে নোয়াখালীতে এসএসসি ও এইচএসসি ০৪/০৬ ব্যাচের উৎসব অনুষ্ঠিত হয়। ২১ ফেব্রুয়ারী শুক্রবার বিকেল ৩টা থেকে নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্কে এই আয়োজন শুরু হয়ে চলে সন্ধ্যা পর্যন্ত। মেয়েদের বালিশ খেলা, কুইজ প্রতিযোগিতা, ছেলেদের হাঁড়ি ভাঙা সহ নাচ গানে পুরোটা মুহুর্ত ছিলো আনন্দ উৎসবে পরিপূর্ণ।

নিশান নূরের দারুন উপস্থাপনায়, সংগঠনের আহবায়ক হাসান ও মহিন উদ্দিনের পরিচালনায় এবং সৌরভ হাওলাদার সুজনের সার্বিক সহযোগিতায় পুরো অনুষ্ঠানটি ছিলো আড্ডা গানে মাতোয়ারা।

বন্ধুত্বের এমন বন্ধন যেন আজীবন অটুট থাকে এমনটাই চাওয়া সকলের। সবাই মিলে একদিনের জন্য হারিয়ে গিয়েছিলো অন্য এক জগতে। এদের মধ্যে কর্মজীবনে কেউ ডাক্তার, কেউ ইঞ্জিনিয়ার, কেউবা আবার বিশ্ববিদ্যালয়ের লেকচারার, আইনজীবী, ব্যবসসায়ী বা পুলিশের উর্ধতন কর্মকর্তা। কিন্তু এখানে সবাই এক হয়ে গেল। বহুদিন পরে এক হতে পেরে সবাই আনন্দে বিমোহিত। একে অন্যের সাথে শেয়ার করতে লাগলো জীবনের গল্পগুলো।

অনুষ্ঠান বাস্তবায়ন কমিটির অন্যতম সদস্য সৌরভ হাওলাদার সুজন বলেন, এটি আমাদের প্রথমবারের মতো আয়োজন। যতটুকু সম্ভব চেষ্টা করেছি নোয়াখালীতে থাকা আমাদের ব্যাচের সকল বন্ধুদেরকে সুন্দর একটি মুহুর্ত উপহার দিতে। সব বন্ধুদের প্রতি কৃতজ্ঞ তাদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণের জন্য। যাদের অংশগ্রহণের মাধ্যমে আজকের আয়োজন সফল। ধন্যবাদ জানাচ্ছি ব্যাতিক্রম ফ্যাশন হাউজের কর্ণধার ইশান ফারুকের প্রতি সকল বন্ধুদের জন্য সুন্দর টি-শার্ট স্পন্সর করার জন্য। সামনের অনুষ্ঠান আরো বড় পরিসরে আয়োজন করার চেষ্টা করবো।

নিশান নূরের চোখ ধাঁধানো উপস্থাপনা আর সুন্দর অতিথি আপ্যায়নে অনুষ্ঠানটিকে করে তোলে আরো প্রানবন্ত। বলতে গেলে সকল কাজের কাজী তিনি। একসাথে সবদিকেই সামলাচ্ছেন খুব সহজভাবে। নিশান নূর বলেন, আমি সত্যি আনন্দিত এমন সুন্দর আয়োজনের জন্য। সকল বন্ধুদের প্রতি ভালোবাসা। আশাকরি সামনেও সকল আয়োজনে এভাবে তোদের সবাইকে সাথে পাবো। আমাদের এই বন্ধুত্ব আজীবন অটুট থাকুক। আমরা চাই এভাবে আমাদের বাকিটুকু জীবন কাটিয়ে দিতে। ধন্যবাদ জানাচ্ছি আমাদের যুগ্ম আহবায়ক বন্ধু নুর আলম রুবেলের প্রতি। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত যার অক্লান্ত পরিশ্রম ছিলো চোখে পড়ার মত। এছাড়াও মনিরুজ্জামান, মহসিন সহ আমাদের প্রত্যেকটি বন্ধুর প্রতি রইলো ভালোবাসা।

সংগঠনটির আহবায়ক এ্যাডভোকেট হাসান আহমেদ বলেন, সবাইকে এক করতে পেরে এবং সুন্দর একটি মুহুর্ত উপহার দিতে পেরে অনেক ভালো লাগছে। এখানে আমরা একটি পরিবারের মতো। সব সময় এই পরিবারটি একসাথে থাকতে চাই। বন্ধুত্বের এই ভালোবাসা যেন আজীবন এভাবে টিকে থাকে এমনটাই চাওয়া।

অনুষ্ঠানের মাঝে মাঝে ছিলো হরেক রকমের পিঠা-পায়েসের আয়োজন। সর্বশেষ ফুসকা উৎসবের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানটি সমাপ্ত হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

http://digitalbangladesh.news/