• সোমবার, ২৫ মে ২০২০, ০৪:৩০ অপরাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
নগদ অর্থ ও ঈদ উপহার সামগ্রী নিয়ে অসহায় মানুষের পাশে ‘ছাত্রলীগ নেতা ও তার পরিবার’ নগদ অর্থ ও ঈদ উপহার সামগ্রী নিয়ে অসহায় মানুষের পাশে ‘ছাত্রলীগ নেতা ও তার পরিবার’ করোনা দুর্যোগে বিপন্ন মানুষের জন্য কাজ করছে। ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগ নেতা এয়াকুব সায়িম ইমন। ঈদের পরের দিন বাজারে আসছে এ এইচ তুর্যের “জ্বলে পুঁড়ে অঙ্গার হইলাম” দেশবাসীকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানালেন ওবায়দুল কাদের কেন্দ্রীয় যুবলীগের পক্ষে সাবেক ছাত্রলীগ নেতার নগদ অর্থ ও খাদ্য সামগ্রী বিতরন! ৫’শত শাড়ী উপহার দিল শ্রী শ্রী রমনা কালী মন্দির ও শ্রীমা আনন্দময়ী আশ্রম পরিচালনা পরিষদ! রাতের আঁধারে “ঈদ উপহার” নিয়ে অসহায় মানুষরে ধারে ধারে ছাত্রলীগ নেতা আশরাফুল ইসলাম লিমন! কেন্দ্রীয় আওয়ামী নেতা নাদেলের সুস্থতা কামনায় শাবি’র ফিরোজের উদ্যোগে দোয়ার আয়োজন। দুস্থদের মুখে ঈদের হাসি ফোটালেন সাব্বির হোসেন

ইনজেকশন দেওয়ার পর প্রসূতির মৃত্যু, স্বজনদের অভিযোগ ভুল চিকিৎসায়

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০১৯

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের বসুরহাট মা ও শিশু হাসপাতালে ভুল চিকিৎসার কারণে ইকজেকশন দেওয়ার সাথে সাথে নুরের নাহার (২৮) নামে এক প্রসূতির মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
নিহত গৃহবধূ ৩ সন্তানের জননী ও সাড়ে ৮ মাসের গর্ভবতী ছিল।

বৃহস্পতিবার (৫ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে বসুরহাট মা ও শিশু হাসপাতালে এ ঘটনা ঘটে।
পরে পুলিশের উপস্থিতিতে হাসপাতালের মালিক পক্ষ ও নিহতের স্বজনদের মধ্যে মারমুখি পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়। পরে দুপুর সাড়ে ২টার দিকে কোম্পানীগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. মোস্তাফিজুর রহমান’র নেতৃত্বে হাসপাতালের সামনে এ্যাম্বুলেন্সে রাখা লাশ থানায় নিয়ে আসে পুলিশ।

নিহতের স্বজনদের অভিযোগ, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডা. রৌশন জাহান লাকীর প্রেসক্রিপশন অনুযায়ী নার্স ইনজেকশন পুশ করার সাথে প্রসূতি মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে। নিহতের স্বজনদের দাবি, ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যু হয়েছে।

মৃত নুরের নাহার উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের ঠাডা আলা বাড়ির কামরুজ্জামন’র স্ত্রী।

তবে ডা. রৌশন জাহান বলেন, ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যু হয়নি। বরং আমার চেয়ে বড় কোন ডাক্তার দিয়ে ঘটনার তদন্ত করলে মৃত্যুর সঠিক কারণ নিশ্চিত হওয়া যাবে বলে তিনি দাবি করেন।

বসুরহাট মা ও শিশু হাসপাতালের চেয়ারম্যান মো.আব্দুল জলিল বলেন, হাসপাতালে রোগীকে সকাল ৮টার দিকে ভর্তি করা হয়ছে, এখানে তেমন কোন চিকিৎসা হয় নাই এ রোগীর। সেখানে ভুল চিকিৎসায় মৃত্যুর প্রশ্নই উঠেনা।

কোম্পানীগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, নিহত গৃহবধূর লাশ ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হবে। যেহেতু এ মৃত্যু নিয়ে নিহতের স্বজনেরা মৌখিক ভাবে অভিযোগ করেছে। তবে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোন লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়নি বলে তিনি নিশ্চিত করেন। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট হাতে পেলে এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানা যাবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

http://digitalbangladesh.news/